08 Oct 2017

অটোক্যাড শিখি [পর্ব-০৩] লেখকঃ রিফাত উল জাকা রাকিব

আসসালামু আলাইকুম ওয়া রাহমাতুল্লাহি ওয়া বারাকাত

আশা করি পরম করুণাময় আল্লাহ তায়ালার রহমতে সবাই ভাল আছেন। স্বাগত জানাচ্ছি এসো অটোক্যাড শিখি সিরিজে।। এটা আমার ৩য় টিউন এবং আশা রাখি পরবর্তীতে আপনাদের আরও নতুন কিছু শিক্ষণীয় টিউন উপহার দিতে পারব। কিছু জটিলতার কারনে নিয়মিত টিউন করা থেকে অনুপস্থিত ছিলাম। বর্তমানে আমি আপনাদের অটোক্যাড ২০১৬ ভার্সন এ টিউটোরিয়াল দেখাবো।

আমার পরবর্তী সকল টিউন ২০১৬ ভার্সন এ তৈরি করব। আর আমি আশা করি, নিয়মিত অটোক্যাডের টিউটোরিয়াল প্রকাশ করতে পারব, যাতে করে আপনাদের কাছে  আর্কিটেকচারাল ড্রয়িং এর ব্যাপারে পরিপূর্ণ একটি শিক্ষণীয় সিরিজ উপহার দিতে পারব, ইনশাল্লাহ্।। পরবর্তীতে আমার ৪র্থ টিউনে আমি আপনাদের অটোক্যাড এর খুঁটিনাটি আরও কিছু তথ্য দিতে পারব বলে আশা রাখি।

আজকের টিউন এ থাকছে

Share this
08 Oct 2017

অটোক্যাড শিখি [পর্ব-০২] লেখকঃ রিফাত উল জাকা রাকিব

بِسْمِ اللَّهِ الرَّحْمَٰنِ الرَّحِيمِ

আসসালামু আলাইকুম ওয়া রাহমাতুল্লাহি ওয়া বারাকাত

আশা করি পরম করুণাময় আল্লাহ তায়ালার রহমতে সবাই ভাল আছেন। স্বাগত জানাচ্ছি এসো অটোক্যাড শিখি সিরিজে।। এটা আমার ২য় টিউন এবং আশা রাখি পরবর্তীতে আপনাদের আরও নতুন কিছু শিক্ষণীয় টিউন উপহার দিতে পারব।। কিছু জটিলতার কারনে নিয়মিত টিউন করা থেকে অনুপস্থিত ছিলাম। বর্তমানে আমি আপনাদের অটোক্যাড ২০১৪ ভার্সন এ টিউটোরিয়াল দেখাবো।

আমার পরবর্তী সকল টিউন ২০১৬ ভার্সন এ তৈরি করব। আর আমি আশা করি, নিয়মিত অটোক্যাডের টিউটোরিয়াল প্রকাশ করতে পারব, যাতে করে আপনাদের কাছে  আর্কিটেকচারাল ড্রয়িং এর ব্যাপারে পরিপূর্ণ একটি শিক্ষণীয় সিরিজ উপহার দিতে পারব, ইনশাল্লাহ্।। পরবর্তীতে আমার ৩য় টিউনে আমি আপনাদের অটোক্যাড এর খুঁটিনাটি আরও কিছু তথ্য দিতে পারব বলে আশা রাখি।

আজ আপনাদের আমি অটোক্যাড ২০১৬ এর ডাউনলোড লিংক দিব।

কিভাবে অটোক্যাড ২০১৬ ভার্সন সেটাপ ফাইল ও ফুল ভার্সন করার ফাইল ডাউনলোড করবেন তার নিয়মটা বলে দেই।

১ম ধাপঃ  নিচের Website লিখায় ক্লিক করে কাঙ্খিত ওয়েবসাইট এ প্রবেশ করবেন।

২য় ধাপঃ ওপারেটিং সিস্টেম চাহিদা মত ৩২বিট বা ৬৪বিট  ক্যাড এ ক্লিক করুন।

৩য়  ধাপঃ যদি ৬৪বিট  এ ক্লিক করেন তবে একটি ডায়ালোগ বক্স আসবে।। আপনারা যদি ইউসি ব্রাউজার ব্যবহার করে থাকেন, তবে ডাউনলোড বক্স ডিরেক্টলি আসবে।। উদাহরণঃ

৪র্থ ধাপঃ এবার আসি ক্র‌্যাক ফাইল ডাউনলোড এ। ঠিক সেই পেজের নিচেই দেখতে পাবেন। Download X-force Keygen এ ক্লিক করবেন। একটি পেজ ওপেন হবে।

৫ম ধাপঃ ঠিক উপরের ছবির মত দেখাবে।। ২০১৬ ভার্সন  এ ক্লিক করুন। অাশা করি সকলেই বুঝতে পেরেছেন।

Share this
08 Oct 2017

অটোক্যাড শিখি [পর্ব-০১] লেখকঃ রিফাত উল জাকা রাকিব

بِسْمِ اللَّهِ الرَّحْمَٰنِ الرَّحِيمِ

আসসালামু আলাইকুম ওয়া রাহমাতুল্লাহি ওয়া বারাকাত

আশা করি পরম করুণাময় আল্লাহ তায়ালার রহমতে সবাই ভাল আছেন। স্বাগত জানাচ্ছি এসো অটোক্যাড শিখি সিরিজে। এটা আমার ১ম টিউন এবং আশা রাখি পরবর্তীতে আপনাদের আরও নতুন কিছু শিক্ষণীয় টিউন উপহার দিতে পারব। আমার এর আগের টিউনগুলো ছোটোখাটো অটোক্যাডার নামে প্রকাশিত হয়েছিল, যার লিংক নিচে দেওয়া হবে।। কিছু জটিলতার কারনে নিয়মিত টিউন করা থেকে অনুপস্থিত ছিলাম।

বর্তমানে আমি আপনাদের অটোক্যাড ২০১৪ ভার্সন এ টিউটোরিয়াল দেখাবো। আমার পরবর্তী সকল টিউন ২০১৬ ভার্সন এ তৈরি করব। আর আমি আশা করি, নিয়মিত অটোক্যাডের টিউটোরিয়াল প্রকাশ করতে পারব, যাতে করে আপনাদের কাছে  আর্কিটেকচারাল ড্রয়িং এর ব্যাপারে পরিপূর্ণ একটি শিক্ষণীয় সিরিজ উপহার দিতে পারব, ইনশাল্লাহ্। পরবর্তীতে আমার ২য় টিউনে আমি আপনাদের অটোক্যাড এর খুঁটিনাটি আরও কিছু তথ্য দিতে পারব বলে আশা রাখি।

Share this
27 Feb 2017

অ্যানিমেশন বানাতে চান এই টিউনটি দেখতে পারেন।দেখে বলেনতো অ্যানিমেশন ট্রেলারটা কেমন হল।

অ্যানিমেশন বানাতে চান এই টিউনটি দেখতে পারেন।দেখে বলেনতো অ্যানিমেশন ট্রেলারটা কেমন হল।

অ্যানিমেশন দেখতে সবাই পছন্দ কর। আবার কেউ অ্যানিমেশন তৈরী করতে পছন্দ করি।
যারা অ্যানিমেশন তৈরি করতে পছন্দ করে তাদের জন্যই এই টিউনটি।

বর্তমান পৃথিবীতে অ্যনিমশেনের তৈরী অ্যাড এর চাহিদা তুঙ্গে। সামনের দিনগুলোতে অ্যাডর্ভারটাইসমেন্টে এর জগৎ এ অ্যনিমশেনের তৈরী অ্যাড রাজ করবে। এর কিছুটা আচ পাওয়া যাচ্ছে অনলাইন টিভিসি বা অ্যাড থেকে। যেমন বর্তমানে অনলাইনে যে অ্যাড দেখায় তার বেশিরভাগ অ্যাড অ্যানিমেশনে তৈরি।

অ্যানিমেশনে তৈরি অ্যাড এর মূল্যও প্রচুর। একটা অ্যাড তৈরি করে ৩০০ থেকে ৩০,০০০ হাজার ডলার পাওয়ার কথা শুনা যায়। অপনি খেয়াল করলেই দেখতে পাবেন বর্তমানে টিভি চ্যানেলের অ্যাড গুলো অ্যানিমশেনরে তৈরি। তাহলে কর্পনা করে দেখুন এর ভবিষৎ বাজার কত রমরমা হবে।

নিচে আমার তৈরি একটা অ্যানিমেশন ভিডিও দেয়া আছে। ভিডিওটি দেখে মতামত জানাতে পারেন ভিডিওটি কেমন হয়েছ। আপনাদের মতামতের উপর ভিক্তি করে কীভাবে অ্যানিমশেন বানাবেন তার উপর টিউটরিয়াল বানাব। তাই কেউ মতামত জানাতে ভুলবেন না। সবাই ভালো থাকবেন।

Share this
27 Feb 2017

এফিলিয়েটিং উপার্জন শিখি ও মাসে সর্বনিম্ন ১০০$ ডলার আয় করি

কোন সিস্টেমে অনলাইন হতে অর্থ উপার্জন করা যাবে?
অনলাইনে অর্থ উপার্জন করার বেশ কয়েকটি মাধ্যম রয়েছে, প্রতিটা মাধ্যমেই কাজ করতে হবে। তবে আমার হিসাবে সহজ মাধ্যম হল কোন এডভাইটাইজিং হিসাবে কাজ করা যেমনঃ গুগল অ্যাডসেন্সসহ অন্যান্য পাবলিশার সাইট। এখানের সুবিধা হল প্রথম ২/১ বছর পরিশ্রমের পর শুধু বসে বসে উপার্জন। সহজ কথা মানে আপনার একটি ব্লগ সাইট থাকতে হবে, ভাল ভিজিটর থাকতে হবে এবং সেখানের অ্যাড দেখানোর মাধ্যমেই ভাল আয় করতে পারবেন। সুতরাং আজকের টিউটোরিয়ালের ১ম প্রকাশনা দেখাবো গুগল অ্যাডসেন্স হিসাবে।

২০১৭ সালে গুগল অ্যাডসেন্সের নতুন নিয়ম
গুগল সর্বদাই তাদের পলিসিনীতি পরিবর্তন করে। তবে এখন পাবলিশারদের জন্য সুখবর হল গুগল সহজেই তাদের একাউন্ট সক্রিয় করে দিবে। বিশেষত গুগলের নীতি সবাই জানেন তাই বিস্তারিত বলতে চাচ্ছিনা। গুগল পাবলিশার একাউন্ট সহজে পেতে হলে আপনাকে পেইড ডোমেইন ও হোস্ট নিতে হবে। এবং ভাল ভাল কিছু কপি রাইট মুক্ত কনটেন্ট তৈরি করতে হবে যেমন ৫০-৬০ টি টিউন। তবে যারা ব্লগারে ফ্রিভাবে সক্রিয় করতে চাইছেন সেখানে আমাদের বাংলাদেশীদের জন্য সহজে সক্রিয় নাও হতে পারে। আর হ্যা আপনার সাইটটি অবশ্যই একটু সাদামাটা হতে হবে।

গুগল অ্যাডসেন্ট পাইতে হলে করনীয়

আপনি যদি প্রথম অবস্থাতে অর্থ খরচ না করতে চান তাহলে ব্লগারে সাইট ওপেন করতে পারেন, ভাল ভিজিটর তৈরি হলে অতপর ডোমেইন ও হোস্টে কনভার্ট করতে পারেন। যদি অর্থ খরচ করার চুলকানি থাকে তাহলে ডোমেইন ও হোস্ট নেওয়াটাও বুদ্ধিমানের কাজ।
ডোমেইন একটু ভেবেচিন্তে নিবেন। কারোর কথাতে প্রচারিত হয়ে হুটহাট রেজি: করবেন না। কারন এমন কিছু ডোমেইন নিতে যাচ্ছেন যেটি পূর্বে কোন কারনে গুগল ব্লক করে রেখেছে। সুতরাং সাইট তৈরি হলে ইনডেক্স নাও হতে পারে। যে লাউ সেই কদু! ? অর্থাৎ ভাল এক্সপাট লোক দ্বারা চেক করে নিবেন। অবশ্য ডোমেইন বিষয়ে পরবর্তীতে কথা বলব।
যেহেতু সাইটটি গুগল অ্যাডসেন্স সহ অন্য এফেলিয়েটিং নিয়ে কাজ করবেন তাই ডোমেইন নিতে খাস বাংলা শব্দ ব্যবহার না করে একটু ইংরাজী শব্দ রাখবেন। বর্তমানে নিচি সাইট গুলো ভাল কাজ করছে। যেমন না হতে পারে taka click, cinemaclick, banglatea ইত্যাদি।
মনে করি ডোমেইন ও হোস্ট নিয়েছেন। খবরদার এখনো অ্যাডসেন্স পাবার জন্য আবেদন করবেন না। প্রথমত আপনার সাইটকে সাজান, কনটেন্ট তৈরি করুন। অতপর আপিল করলে দেখবেন অ্যাডসেন্স পাইয়েছেন। ডোমেইন ও হোস্ট দ্বারা তৈরি সাইটগুলো গুগল সহজে ইনডেস্ক হয় ও রেটিং ক্রেডিট বৃদ্ধি হয়।
কেমন সাইট হবে ডিজাইন হিসাবে?

প্রথমেই বলেছি গুগল অনেকটা সাদামাটা সাইট পচ্ছন্দ করে। সুতরাং রং-ঢাক মেখে কর্মাসিয়াল সাইটের মত হবার প্রয়োজন নাই।
সাইটে About, Privacy, Contact, sitemap ইত্যাদি অবশ্যই সংযোজন করতে হবে।
বেশী প্লাগিন ব্যবহার করে সাইট ভারি করার প্রয়োজন নাই।
থীমটি পেইড হলে ভাল হয় কিংবা কোন ডেভেলপার মাধ্যমে তৈরি করে নিতে পারেন। অবশ্য ওয়ার্ডপ্রেসে যে ডিফল্ট থীম থাকে সেখান হতে যে কোন একটি ব্যবহার করলে হবে।
আপনার সাইটটি যে কোন বিষয়ে করতে পারেন যেমন মুভি, ছবি, ভ্রমন, লেখাপড়া, প্রযুক্তি, খেলাধূলা, স্বাস্থ্যবটিকা যে কোন একটি মৌলিক বিষয়ে।
সাইট তৈরির পর আপনার ডোমেইনসহ অন্যান্য বিষয়াদি গুগল সহ অন্যান্য ওয়েব মাস্টারে ভেরিফাই করিয়ে নিতে হবে যেমনঃ ইয়াহু, বিং, ইয়ানডেস্ক ও এসইও করতে হবে।
আপনার সাধের ব্লগ সাইটের ডিজাইন কি ধরনের হবে তার Preview Image দেখতে ক্লিক করুন এখানে
সর্বশেষ
আলোচনা দীর্ঘতর হয়ে গেল। এখানেই থামাতে হচ্ছে। বাকি অংশগুলো ধারাবাহিকভাবে টিউটোরিয়াল/পর্ব হিসাবে আলোচনা করব। ও হ্যা আরেকটি কথা বলতে ভূলে গেছি আপনি যে নামে ডোমেইন নিচ্ছেন তার আশেপাশে অন্যান্য সাইটগুলো ইউজার নেমগুলোও একই হলে ১০০% ইউনিক হয়। যেমনঃ সাইটের নাম Mofiz Pagla (মফিজ পাগল) তাহলে অন্যান্য সোস্যাল সাইট যেমন টুইটার, ফেসবুক, ইমেইল, ডিগ, ইনস্টাগ্রাম, ভেমো, লিংকডেন নামগুলোও একই মাপের হলে আরো ভাল। ডোমেইন নাম Mofiz Pagla  কিন্তু অন্যগুলোতে ব্যবহার করছেন Mofiz Mama তাই না? ? তাহলে আজ এই পর্যন্তই, টিউনটি ভাল লাগলে টিউমেন্ট পাবার প্রত্যাশা রাখছি। ? সবাই ভাল থাকুন, আল্লাহ হাফেয- ?  ?

Share this
27 Feb 2017

Photoshop CC সারাজীবনের জন্য ফ্রীতে নিয়ে নিন, মাসে ৩০ ডলার বাঁচান

গ্রাফিক ডিজাইন বর্তমান সময়ে অনলাইন মার্কেটপ্লেস এ প্রচুর চাহিদা রয়েছে, অনেকেই আবার অনলাইন মার্কেটপ্লেস এ কাজ করে প্রচুর টাকা উপার্জন করছে। যাই হােক এই টপিক নিয়ে আরেকটি টিউনে আলোচনা করা হবে। এবার কাজের কথায় আসি,আপনি যদি অনলাইন মার্কেটপ্লেস এ কাজ করতে চান তাহলে অবশ্যই যে কােন একটি বিষয় এর উপর অভিঙ্গ হতে হবে। এই অভিঙ্গতা যে কোন কিছুর উপর হতে পারে।

আর এই অভিঙ্গতা যদি  ফটোশপের উপর হয় তাহলে তো আপনার পিসিতে আর কিছু থাকুক বা নাই থাকুক ফটোশপ অবশ্যই থাকবে।এখন কথা হচ্ছে ফটোশপের কোন ভার্সনটা ব্যবহার করবেন? চোঁখ বুজে উওর হবে ফটোশপের আপডেট ভার্সন। কারন আপডেটে সবসময়ই কিছু না কিছু নতুনত্ত থাকে।

বর্তমান সময়ের সর্বশেষ আপডেট Photoshop CC। আর ফটোশপ সিসি ৭ দিনের জন্য ট্রায়েল হিসেবে ব্যবহার করতে পারবেন। এর পর ব্যবহার করতে হলে মাসে ৩০ ডলার খরচ করতে হবে। তাই আজ দেখাব কীভাবে ফটোশপ সিসি সারাজীবনের জন্য ফ্রীতে ব্যবহার করবেন। দেরি না করে চলেন শুরু করা যাক। নিচের দেয়া লিংক থেকে Photoshop CC ইন্সটলার ও ক্রিক ডাউনলোড করে নিন। কোন সমস্যা হলে ভিডিও দেখে নিতে পারেন।

এখান থেকে ডাউনলোড করুন:- Photoshop CC Crack File

Share this
27 Feb 2017

বিজনেস কার্ড ডিজাইন শিখে পেশাদারী ডিজাইনার দের মত কাজ করুন

বন্ধুরা বিজনেস কার্ড ডিজাইন করতে হোলে  বেসিক দিক গুলো দিকে নজর দিতে হবে, যেমন সিম্পল ডিজাইন কিন্তু ডিজাইন টি সুন্দর হতে হবে।যে বিশয় এর জন্য ডিজাইন করছি সেই বিশয় সমন্ধে জানা, ক্লাইন্ট কি চাইছে তার বিজনেস কর্ডের মধে কি কি কন্টেন্ট থাকবে সেই সমন্ধে বোঝার চেষ্টা করা, জাতে আমরা সেই রকুম ডিজাইন করতে পারি জেরকুম টা ক্লাইন্ট চাইছে। এই কটা জিনিশের দিকে যদি আমরা নজর দেই তাহলে আমার মনে হই যে একটি ভালো ডিজাইন তইরি করা জাই। আর বিজনেস কার্ড বা লোগো ডিজাইন করতে হোলে আপনাকে অ্যাডোব ইলাস্ট্রেটর আর ফটোশপ জানা অত্যন্ত প্রয়োজন। আমি আজকে যে ভিডিওটা নীয়ে এসেছি সেই ভিডিওতে আমি দেখেয়েছি যে কিছু সিম্পল টিপস উসে ব্যবহার করে কি ভাবে একটি সুন্দর বিজনেস কার্ড ডিজাইন করবেন। আমার ভিডিও যদি আপনাদের ভালো লাগে তাহলে আমার ইউটিউব চ্যানেলে দয়া করে সাবস্ক্রাইব করুন। আর যদি কোন হেলফ লাগে ডিজাইন সম্বন্ধে তাহলে টিউমেন্ট করুন আমার ইউটিউব টিউমেন্ট বক্সে।

আমাকে ইমেইল করে জানাতে পারেন আমি জথা শাদ্দ চেষ্টা করব হেলফ করার জন্য, আমার ইমেইল এখেনে ক্লিক করুন .

আমার ফেসবুক গ্রুপে যোগ দিতে পারেন এখানে ক্লিক করুন।

আমার ফেসবুক পেজে যোগ দিতে পারেন এখানে ক্লিক করুন।

আজ এখেনেই শেষ করলাম, আবার নতুন ডিজাইন নীয়ে আপনাদের কাছে আমি হাজির হবো ভালো থেকবেন সবাই আমি আল্লাহর কাছে দোয়া করছি। বন্ধুরা আজ আমি একটি লোগো ডিজাইনের টিউটোরিয়াল নীয়ে আপনাদের কাছে হাজির হয়েছি

আমি আশা করছি যে আপনাদের ভালো লাগবে।

Share this
26 Feb 2017

Collaboratively negotiate

Synergistically supply global testing procedures through ethical scenarios. Assertively develop empowered customer service and sticky leadership. Enthusiastically parallel task principle-centered portals via multimedia based scenarios.
Synergistically negotiate dynamic total linkage after sticky information. Objectively monetize 2.0 manufactured products and open-source web-readiness.Dynamically recaptiualize corporate “outside the box” thinking with worldwide e-commerce.

Synergistically supply global testing procedures through ethical scenarios. Assertively develop empowered customer service and sticky leadership. Enthusiastically parallel task principle-centered portals via multimedia based scenarios.
Synergistically negotiate dynamic total linkage after sticky information. Objectively monetize 2.0 manufactured products and open-source web-readiness.Dynamically recaptiualize corporate “outside the box” thinking with worldwide e-commerce.

Share this
26 Feb 2017

Uniquely develop quality catalysts

Synergistically supply global testing procedures through ethical scenarios. Assertively develop empowered customer service and sticky leadership. Enthusiastically parallel task principle-centered portals via multimedia based scenarios.
Synergistically negotiate dynamic total linkage after sticky information. Objectively monetize 2.0 manufactured products and open-source web-readiness.Dynamically recaptiualize corporate “outside the box” thinking with worldwide e-commerce.

Synergistically supply global testing procedures through ethical scenarios. Assertively develop empowered customer service and sticky leadership. Enthusiastically parallel task principle-centered portals via multimedia based scenarios.
Synergistically negotiate dynamic total linkage after sticky information. Objectively monetize 2.0 manufactured products and open-source web-readiness.Dynamically recaptiualize corporate “outside the box” thinking with worldwide e-commerce.

Share this
Click Me